সালমান খানের হাত ধরে খুব ধুমধাম করে বীর ছবির মাধ্যমে বলিউডে পা রেখেছিলেন জারিন খান। এরপর হাতে গোনা কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। সালমান খানই তাঁকে চলচ্চিত্রজগতে আবিষ্কার করেছিলেন। জারিনের মধ্যে নাকি ক্যাটরিনার ছায়া খুঁজে পেয়েছিলেন সালমান। তবে বলিউডে জারিনের ইমেজ আবেদনময়ী হিসেবে। নিজের ইমেজ ছেড়ে বের হতে চাইছিলেন তিনি। এ প্রসঙ্গে জারিন বলেন, ‘আমাকে সব সময় আবেদনময়ী আর গ্ল্যামারাস চরিত্রের জন্য প্রস্তাব দেওয়া হয়। আমি সেই সব প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছি। আমি নিজের এক অন্য ইমেজ গড়তে চাই। অভিনয়শিল্পী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করতে চাই।’

লকডাউনের কারণে দীর্ঘদিন গৃহবন্দী জারিন। তাই কাজের জগৎ থেকে বাইরে তিনি। আর্থিক সংকটের মুখোমুখি হতে চলেছেন সালমানের এই নায়িকা। এ প্রসঙ্গে জারিন বলেন, ‘আমার বাড়িতে একমাত্র আমিই আয় করি। চার মাস ধরে কোনো কাজ নেই। তাই ভীষণ অসুবিধার মধ্যে পড়েছি। আমার বাবা-দাদারা এত টাকা সঞ্চয় করেননি যে আমরা বসে বসে খাব। তাই বাধ্য হয়ে আমায় কাজে নামতে হয়েছে। এবার আমার জমানো পুঁজি শেষের পথে। তাই আমাকে তাড়াতাড়ি কাজের ফিরতে হবে।’

জারিন খান অভিনীত ছবি হাম ভি আকেলে, তুম ভি আকেলের প্রসঙ্গ উঠে আসে। জারিন বলেন, ‘আমার এই ছবির জন্য বেশ কিছু পুরস্কার পেয়েছি। কিন্তু ওটিটি প্ল্যাটফর্মগুলো একে ছোট ছবি ভেবে রিলিজ করতে চাইছে না। ওটিটি প্ল্যাটফর্মগুলো বড় বড় তারকার ছবি রিলিজ করার ব্যাপারে বেশি উৎসাহ দেখায়।’ জারিন খানকে শিগগিরই একটি ওয়েব সিরিজে দেখা যাবে। তিনি বলেন, ‘আমার কাছে এর আগেও অনেক ওয়েব সিরিজের প্রস্তাব এসেছে। কিন্তু আমি মনের মতো চরিত্রের অপেক্ষায় ছিলাম। আমি অন্য ধরনের চরিত্রে নিজেকে মেলে ধরতে চাইছিলাম।’