রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই ল্যাভরভ বলেছেন, তার দেশকে ‘শাস্তি দেয়ার’ মার্কিন পদক্ষেপ অনুসরণ করতে গিয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়ন বা ইইউ নিজের কৌশলগত ও ভূ-অর্থনৈতিক স্বার্থ জলাঞ্জলি দিচ্ছে। তিনি রুসিয়া-১ টিভি চ্যানেলের ‘মস্কো ডট ক্রেমলিন ডট পুতিন’ অনুষ্ঠানকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, “দুঃখজনকভাবে রাশিয়াকে শাস্তি দেয়ার ক্ষেত্রে ইইউ আমেরিকার চেয়ে পিছিয়ে পড়তে চায় না বলে নিজের কৌশলগত ও ভূ-অর্থনৈতিক স্বার্থ বিকিয়ে দিচ্ছে।” তিনি আরো বলেন, “আমরা এসবে অভ্যস্ত হয়ে গেছি।”

এ অবস্থায় রাশিয়াকে নিজের জন্য একটি নিরাপদ বলয় গড়ে তুলতে হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন। ল্যাভরভ বলেন, ইইউ যদি তার নেতিবাচক ও ধ্বংসাত্মক অবস্থান ধরে রাখে তাহলে তার খেয়াল-খুশির ওপর নির্ভর করা রাশিয়ার উচিত হবে না। এর পরিবর্তে যারা দ্বিপক্ষীয় স্বার্থরক্ষা ও সম্মান প্রদর্শনের মাধ্যমে রাশিয়ার সঙ্গে সহযোগিতা করতে চায় তাদের সঙ্গে সহযোগিতার মাধ্যমে মস্কোকে নিজের উন্নয়নের ধারা বহাল রাখতে হবে।

পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞার প্রতিক্রিয়ায় রাশিয়া কি করবে- এমন প্রশ্নের উত্তরে সের্গেই ল্যাভরভ বলেন, আন্তর্জাতিক সম্পর্কের ক্ষেত্রে পাল্টা পদক্ষেপ নেয়ার যে রীতি চালু রয়েছে মস্কো তা অনুসরণ করবে এবং কোনো নিষেধাজ্ঞাকেই বিনা উত্তরে ছেড়ে দেবে না।

#পার্সটুডে