সিদ্ধান্তটা খেলোয়াড়দের ওপরেই ছেড়ে দিয়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। যে কেউ চাইলে যেকোনো লিগে খেলতে পারবে, এমনকি জাতীয় দলের খেলা থাকলেও- সোমবার পড়ন্ত বিকেলে বিসিবি কার্যালয়ের সামনে দাঁড়িয়ে এ কথাই বলেছিলেন সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

তবে সেই পথে হাঁটলেন না বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমান। আসন্ন আইপিএলের সময় বাংলাদেশ দলের খেলা থাকলে তিনি বাংলাদেশের জার্সি গায়েই খেলবেন। তিনি সাফ বলে দিয়েছেন, সবার আগে দেশের খেলা।

মঙ্গলবার বিসিবি একাডেমিতে সংবাদমাধ্যমে মোস্তাফিজ বলেছেন, ‘সবার আগে আমার দেশের খেলা। শ্রীলঙ্কা (সফরের) টেস্টে যদি থাকি, তাহলে আমি টেস্ট খেলব। যদি না থাকি তাহলে বিসিবি তো আমাকে বলবে যে, আমি নাই। তখন আমি বিসিবিকে বলব (আইপিএল খেলার কথা), বিসিবি যদি আমাকে ছাড়ে, তাহলে আমি আইপিএলে খেলব। দেশপ্রেম আগে।’

২৫ বছর বয়সী এ বাঁহাতি পেসারের সোজাসাপটা কথা, তিনি সিদ্ধান্ত নেয়ার ভার দিয়ে রাখবেন বিসিবির কোর্টেই। ক্রিকেট বোর্ড তাকে যেটা বলবে, সেটাই করবেন তিনি। বিসিবি চাইলে শ্রীলঙ্কা সফরে অবশ্যই যাবেন তিনি।

মোস্তাফিজের ভাষ্য, ‘যদি টেস্টে আমাকে রাখে, আমি টেস্ট খেলব। যদি না রাখে তাহলে বিসিবি জানে। বিসিবি যেটা বলবে আমি সেটা করব। বিসিবি চাইলে (শ্রীলঙ্কা যেতে) রাজি না হওয়ার তো কিছু নাই। দেশের খেলা বা আইপিএলে খেলা- এ বিষয়ে অন্য কোন চাপ নেই।’

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) হওয়া আইপিএলের নিলামে বাংলাদেশ থেকে সুযোগ পেয়েছেন সাকিব আল হাসান ও মোস্তাফিজুর রহমান। সাকিবকে ৩ কোটি ২০ লাখ রুপিতে কলকাতা নাইট রাইডার্স এবং মোস্তাফিজকে ১ কোটি রুপিতে কিনে নিয়েছে রাজস্থান রয়্যালস।

সাকিব আল হাসান এরই মধ্যে আইপিএলের জন্য জাতীয় দল থেকে ছুটি চেয়ে নিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন, সে সময় শ্রীলঙ্কা সফরের টেস্ট সিরিজ থাকলে খেলতে পারবেন না। সাকিবের এমন সিদ্ধান্তের পর সবার আগ্রহ ছিল মোস্তাফিজের ওপর। আজ মোস্তাফিজ জানালেন টেস্ট সিরিজের দলে তিনি থাকলে, আগে টেস্টই খেলবেন।

The decision was left to the players by the Bangladesh Cricket Board. Anyone can play in any league if they want, even if there is a national team game – this is what President Nazmul Hasan Papon said while standing in front of the BCB office on Monday afternoon.

However, left-arm pacer Mostafizur Rahman did not walk that path. If Bangladesh has a game during the upcoming IPL, he will play in the Bangladesh jersey. He made it clear that the country’s game comes first.

“My country’s game comes first,” Mostafiz told reporters at the BCB academy on Tuesday. If I am in the Sri Lanka (tour) Test, I will play the Test. If not, the BCB will tell me that I am not. Then I will tell BCB (about playing in IPL), if BCB leaves me, then I will play in IPL. Patriotism first. ‘

The 25-year-old left-arm pacer, to put it bluntly, will be in charge of making the decision in the BCB court. He will do whatever the cricket board tells him to do. If BCB wants, he must go to Sri Lanka.

Mostafiz commented, ‘If you put me in the Test, I will play the Test. If not, BCB knows. I will do whatever the BCB says. If the BCB wants (to go to Sri Lanka) there is no reason not to agree. There is no other pressure on the country or the IPL.

It may be mentioned that Shakib Al Hasan and Mostafizur Rahman got a chance from Bangladesh in the IPL auction held last Thursday (February 18). Shakib was bought by Kolkata Knight Riders for Rs 32 million and Mostafiz was bought by Rajasthan Royals for Rs 1 crore.

Shakib Al Hasan has already asked for leave from the national team for the IPL. He said he would not be able to play if he had a Test series against Sri Lanka at that time. After Shakib’s decision, everyone was interested in Mostafiz. Today, Mostafiz said that if he is in the team for the Test series, he will play the Test first.